এক্সিকিউটিভ ব্যাগ

চাকরিজীবিদের জন্য এক্সিকিউটিভ ব্যাগ কিনবেন ভাবছেন?

মেল কর্নার ছেলেদের ব্যাগ
Spread the love

এক্সিকিউটিভ ব্যাগ নিয়ে কিছু কথা

এক্সিকিউটিভ ব্যাগ নিয়ে খুব গভীরে বলার মতো কিছু থাকেনা। দেখলেন আর পছন্দ হলে কিনে ফেললেন। এরকমই তো করি আমরা। তবে অনেক মানুষ আছেন যারা একটু শৌখিন। তারা কিছু কিনতে গেলে দেখেশুনে কিনেন। অনেক ধরনের ব্যাগ আছে বাজারে। ট্রাভেল, ভ্যানিটি, স্কুল, এক্সিকিউটিভ ব্যাগ ইত্যাদি।

এতোগুলা ব্যাগের মধ্যে অনেক ধরনের কোয়ালিটি আছে। সবকিছু বাদ দিয়ে ‘লেদার’ এর প্রতি মানুষের দুর্বলতা আছে। লেদার মানেই বেস্ট কোয়ালিটি। আপনি যদি চাকরিজীবি হোন আর ভালো এক্সিকিউটিভ ব্যাগ খুঁজেন তাহলে আজকে আমি যে টপিক নিয়ে কথা বলবো তা আপনার পড়া উচিত।

চাকরির ব্যাগ

আমি তিনটা লেদার এক্সিকিউটিভ ব্যাগ এর কথা বলবো আপনাকে। এক্সিকিউটিভ ব্যাগগুলো অরিজিনাল লেদারের এবং খুবই স্টাইলিশ। এক্সিকিউটিভ ব্যাগগুলোকে ব্রিফকেস ব্যাগ হিসেবে চিনেন অনেকে। তাই এটা অফিস ব্যাগ বা এক্সিকিউটিভ ব্যাগ বা ব্রিফকেস ব্যাগ হিসেবে ধরে নিন।

চাকরিজীবিদের কাছে এই এক্সিকিউটিভ ব্যাগের পপুলারিটি অনেক বেশি। এসব ব্যাগে ল্যাপটপ, মোবাইল ইত্যাদি জরুরি জিনিস রাখা যায়। একই সাথে এগুলা দিয়ে অনেকে স্টাইল করতে পছন্দ করেন। লেদারের এক্সিকিউটিভ ব্যাগ এর অনেক দাম হয়। যারা লেদারের জিনিস ব্যবহার করেন তাদের এটা জানার কথা।

চাকরিজীবিদের জন্য তিনটি চমৎকার লেদার এক্সিকিউটিভ ব্যাগ

চাকরিজীবির ব্যাগ

আমি যে তিনটি এক্সিকিউটিভ ব্যাগ নিয়ে কথা বলবো সেগুলো অরিজিনাল চামড়ার এক্সিকিউটিভ ব্যাগ। নিচে তিনটা ব্যাগ নিয়ে কিছু কথা বললাম।

CROCO PRINT LEATHER BRIEFCASE OFFICIAL BAG

লেদারের প্রথম এক্সিকিউটিভ ব্যাগটি হলো এই SB W15 মডেলের ব্যাগ। এটা ব্রিফকেস এর মতো। এটার মেইন কমপার্টমেন্ট একটি। অনেকে কমপার্টমেন্ট কথাটা নাও বুঝতে পারেন। এখানে ব্যাগ কম্পার্টমেন্ট বলতে ব্যাগের ভিতরের অংশ বা পকেট বুঝাতে চাচ্ছি।

ব্যাগের বাইরের অংশে উপরের পার্টে দুটি পকেট আছে। বাইরে পিছনের সাইডে একটা বড় পকেট আছে। ভিতরে একটা ল্যাপটপ স্লিভ রয়েছে যেখানে ১৫ ইঞ্চির ল্যাপটপ রাখা যাবে।

ইন্টারেস্টিং বিষয় হলো ভিতরে মোবাইল, কলম ইত্যাদি রাখার জন্য ছোট ছোট কমপার্টমেন্ট রয়েছে। আরো কিছু জিপার রয়েছে মানিব্যাগ (ওয়ালেট), চাবি ইত্যাদি রাখার জন্য। ব্যাগের নিচে মেটাল থাকায় নিচের অংশ ক্ষতিগ্রস্ত হবেনা।

কাঁধে ঝুলিয়ে রাখার জন্য রিমোভেবল স্ট্র্যাপ আছে। এটা প্রয়োজন লাগলে রাখতেও পারেন, আবার খুলেও রাখতে পারেন। যারা কাঁধে ঝুলিয়ে রাখতে স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করেন তাদের জন্য ভালো হবে। ভালো লাগলে কিনে নিতে পারেন। কোয়ালিটি অনেক ভালো।

দাম ৪৯৫০ টাকা।

SSB Tokyo Premium Leather Men’s Executive Bag

চাকরিজীবির এক্সিকিউটিভ ব্যাগ

নেভি কালারের এই ব্যাগটি আমার কাছে চমৎকার লেগেছে। দারুণ স্টাইলিশ লেদারের ব্যাগ এটা। গরুর চামড়া বললে আপনার কাছে ভালো লাগবেনা। তাই একটু স্মার্টলি বললে কাউ লেদারের ব্যাগ বলতে পারি। এটাতে একটা ল্যাপটপ চেম্বার রয়েছে। একটা মোবাইল পকেট, পেন হোল্ডার, জিপ পকেট রয়েছে।

ব্যাগটি যেমন স্টাইলিশ তেমনি এর জিপারগুলোও চমৎকার। অনেকে জিপারকে ব্যাগের চেইন হিসেবে চিনেন। এই ব্যাগের সাইজ প্রস্থে ২৭ মিটার, দৈর্ঘ্য ৩৮ সেন্টিমিটার এবং ডেপথ বা গভীরতা ৭ সেন্টিমিটার।

ব্যাগটির কালার এবং লুকিং অনেক গর্জিয়াস। আগের ব্যাগের চেয়ে মাত্র ১০০ টাকা বেশি হলেও আগেরটার চেয়ে এই ব্যাগ আমার কাছে বেশি ভালো লেগেছে।

দাম ৫০৫০ টাকা। বিডিশপে এই ব্যাগের ৯০ দিনের লেদার গ্যারান্টি দিচ্ছে। এটার কারণে কাস্টমার হিসেবে নিশ্চিন্ত থাকতে পারেন। পছন্দ হবে কি হবেনা সেটা সম্পূর্ণ আপনার উপর।

SSB Antique Cara Premium Leather Executive Bag

চাকরির এক্সিকিউটিভ ব্যাগ

দাম একটু বাড়াতে পারলে এটা আপনার জন্য একটা অপশন হতে পারে। চমৎকার কালার এবং ডিজাইন সমৃদ্ধ একটা ব্যাগ। এর কালারটা অনেক গর্জিয়াস।

এটা প্রিমিয়াম এন্টিক কাউ লেদার দ্বারা তৈরি। ন্যাচারালি ট্যানার করার কারণে এর কোয়ালিটি হয়ে উঠেছে আরো সুন্দর! একটা ল্যাপটপ কম্পার্টমেন্ট রয়েছে যেটাতে ল্যাপটপকে রক্ষা করার জন্য প্যাড দেয়া আছে।
মোবাইল ফোনের জন্য ব্যাগের বাইরের অংশে দুটি পকেট রয়েছে।

ব্যাগের পেছনের অংশে রয়েছে আরেকটা জিপার পকেট। এই ব্যাগের উচ্চতা ২৭ সেন্টিমিটার, প্রস্থ ৩৭.৫ সেন্টিমিটার এবং গভীরতা ১২ সেন্টিমিটার। এই ব্যাগটি অন্যগুলার চেয়ে একটু দামি। তবে এটা সবচেয়ে সুন্দর এবং স্টাইলিশ। কালারটাও কি চমৎকার!

দাম ৫৯৫০ টাকা। বিডিশপে ব্যাগটির ৯০ দিনের লেদার গ্যারান্টি দেয়া আছে। নিশ্চিন্ত থাকতে পারেন এর কোয়ালিটি নিয়ে। ভালো লাগলে কিনে নিতে পারেন।

আর হ্যাঁ, আমাদের আরো রিভিউ পড়তে পারেন এখানে

আমাদের আরো ব্লগ